Dainik Sangbad – দৈনিক সংবাদ
Image default
ট্রেন্ডিং

প্রচুর লোকসান ব্যবসায়ে! বাড়ী থেকে চিৎকার শুনে প্রতিবেশীরা ছুটে এসে দেখলো ভয়াবহ দৃশ্য

ব্যবসায়ে লাভ লোকসান লেগেই থাকে। কিন্তু কখনো কখনো লোকসানের ভারে এতটাই বেড়ে যায় যে সেটা মানসিকভাবে সামলে ওঠা মুশকিল। তখন মানুষ হয়ে পড়ে অস্থির। সেই অস্থিরতা সামলাতে পারেনা অনেকেই।

ছত্তিশগড়ের জগদলপুরে এমনই একটা ঘটনা ঘটেছে যেখানে মা, ছোট ভাই ও বোনকে হত্যা করেছে ছেলে। ঘটনাস্থলেই মা মারা যান। অন্যদিকে ভাই ও বোন গুরুতর আহত হয়েপরেন। এরপর অভিযুক্ত ছেলেও বিষ খেয়ে আত্মহত্যা করে। এই চাঞ্চল্যকর ঘটনাটি ঘটেছে কংগ্রেসের প্রাক্তন বিধায়ক মন্নুরাম কচ্ছের বড় ভাই সুখরাম কচ্ছের টোকাপালের বাড়িতে।

বস্তার পুলিশ জানিয়েছে, গতরাতে সুরেন্দ্র কচ তার মা রাধিকা, ভাই কৃষ্ণ কচ্ছ এবং বোন সরিতা কচ্ছকে ধারালো ছুরি দিয়ে আক্রমণ করে। হামলায় ঘটনাস্থলেই মা রাধিকা মারা যান। অন্যদিকে ভাই ও বোন গুরুতর আহত হয়েছেন। ঘটনার পর ভাই বোনের ঘরে বাইরে থেকে তালা লাগিয়ে দেয় অভিযুক্ত ওই যুবক।

কিন্তু তাদের বাঁচার আর্ত চিৎকার শুনে প্রতিবেশীরা সেখানে পৌঁছে আহত ভাইবোনদের ডিমরাপাল হাসপাতালে ভর্তি করে। অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ওম প্রকাশ শর্মা বলেছেন যে তিনি যখন হাসপাতালে ভর্তি সরিতার সাথে কথা বলেন, তখন সে তাদের বলে যে তাদের ভাই সুরেন্দ্র কচ পেট্রোল পাম্প ব্যবসায় ক্ষতির কারণে খুব গম্ভীর চুপচাপ ছিলেন। সম্ভবত এ কারণেই তিনি ক্ষিপ্ত হয়ে সবাইকে ছুরিকাঘাত করেন।পারিবারিক সূত্রে জানা গিয়েছে, দিলমিলি ও গিদাম রোডে কচ্ছ পরিবারের একটি পেট্রোল পাম্প রয়েছে। সেই ব্যাবসা সংক্রান্ত কিছু জটিলতার জেরে বাড়িতে ঝগড়া চলছিল। এই বিরোধ ও ব্যবসায় লোকসানের জের ধরে বড় ছেলে এই নৃশংস হত্যাকাণ্ড ঘটিয়ে নিজেই আত্মহত্যা করেছে। ঘটনার তদন্ত করছে পুলিশ।

Related posts

করোনা সংক্রমণের আতঙ্ক ঘিরে চরম সিদ্ধান্ত! বিষ খেয়ে আত্মহত্যার সিদ্ধান্ত পরিবারের পাঁচ সদস্যের

News Desk

কৃষিকাজ করতে করতেই হঠাৎ বানিয়ে ফেললেন পর্ন ছবি! এখন মাসে আয় ২ কোটি টাকা

News Desk

স্ত্রীকে বাথরুমে দরজা বন্ধ করে দিঘার হোটেল রুমে ‘গলায় ফাঁস লাগালো’ স্বামী! ঘটনায় চাঞ্চল্য

News Desk