Dainik Sangbad – দৈনিক সংবাদ
Image default
FEATURED ট্রেন্ডিং

অদ্ভুত ভাবে যৌনতাকে উপভোগ! ৬ জন মহিলা জানালেন তাদের সেক্সটিং অভিজ্ঞতা

যাঁরা চমৎকার যৌনজীবনের অধিকারী, তাঁরা এই বিষয়ে বেশ গর্বিত ও আনন্দিত বোধ করেন এমনটা বলাই যায়। এটি শুধুমাত্র তাদের মুড ভালো করে তাই নয়, তাদের সঙ্গীর সাথেও সম্পর্কের উন্নতি ঘটায়। তবে অনেক সময় কোনো কোনো যুগলের পক্ষে একসঙ্গে থাকা সম্ভব হয় না। যার কারণে তাদের সম্পর্কের মধ্যে দূরত্ব সৃষ্টি হয়। কিন্তু তাহলে কি রোমান্স এ ভাঁটা? না আজকালকার ডিজিটাল মিডিয়ায় যুগে দূরত্ব ঘোচানোর জন্য একাধিক মাধ্যম রয়েছে।

তাই এমন পরিস্থিতিতে পড়লে, দম্পতিরা তাদের যৌন ইচ্ছা পূরণের জন্য ফোন সেক্স, সেক্সটিং বা এমনকি ভিডিও কলিংয়ের আশ্রয় নেয়। এই প্রতিবেদনে আমরা আপনার জন্য এমন ৬ জন মহিলার অভিজ্ঞতা শেয়ার করছি, যারা নাম আত্মগোপন রেখে তাদের হট সেক্সটিং গল্পের কথা বলছে।

দুপুরের প্রখর রোদে সেক্সিং:

এক মহিলা জানান “একবার, আমি উত্তপ্ত আবহাওয়ার কারণে খুব গরম অনুভব করছিলাম এবং তখনই আমার সঙ্গী আমাকে ফোন করে। আমি তার কাছে আবহাওয়ার বিষয়ে অভিযোগ করেছিলাম, কিন্তু সে আমার অভিযোগ শোনার পরিবর্তে সেক্স এবং কামুক কথাবার্তা দিয়ে আমাকে উস্কে দিতে থাকে। যার কারণে আমার দেহের তাপমাত্রা যেন আরও বেড়ে গেল। আমরা সেই বিকেলে ফোনে সেক্স করেছি, যা আমি কল্পনাও করতে পারিনি তার চেয়ে বেশি হট ছিল সেই অভিজ্ঞতা।

অফিস রোম্যান্স:

আরেক জন বলেন, “আমার সহকর্মী এবং আমি গোপনে একে অপরের সাথে ডেট করছিলাম। এই সম্পর্ক মাত্র কয়েক মাস আগে শুরু হয়েছিল এবং আমরা দুজনেই আনুষ্ঠানিকভাবে একসাথে হয়েছিলাম। একবার মধ্যাহ্নভোজের সময় সে আমাকে টেক্সট করেছিলেন যে, ‘আমি তোমাকে দুপুরের লাঞ্চের জন্য নিয়ে যেতে চাই’ এবং এটি আমাকে হতবাক করে দিয়েছিল। তারপরে একগুচ্ছ সেক্সি টেক্সট এসেছিল যা আমি ওয়াশরুমে যাওয়ার সাথে সাথে চলতে থাকে। তার কথাগুলো আমাকে এমন এক অর্গ্যাজম দিয়েছে যা আগে কখনো ঘটেনি। সেদিন আমার সবচেয়ে উত্তেজনাপূর্ণ মিটিং ছিল। অফিস টাইমের পর সে আমাকে সেক্সি হাসি দিয়েছিল।”

থ্রিল অফ থ্রিসোম:

এক বিবাহিত মহিলা জানান, “আমার স্বামী এবং আমি কিছুদিন ধরে খোলামেলা সম্পর্কে ছিলাম। যা আমাদের সম্পর্কের ভারসাম্য বজায় রেখেছিল। একবার আমার স্বামী আমার সাথে সেক্স করতে/২ শুরু করল এবং বলল কিভাবে সে আমার সাথে সেক্স করতে চায়। তার ফ্যান্টাসি ছিল যে আমরা সেক্স করছি এবং কেউ আমাদের সেক্স করতে দেখছে। আমি তার কাছ থেকে এমন কথা শুনে হতবাক হয়ে গেলাম এবং খুব তাড়াতাড়ি উত্তেজিত হয়ে উঠলাম। পুরো কথোপকথনটি খুব কামুক ছিল এবং আমি সত্যিই এটি এনজয় করেছি।”

ইরোটিক টিজিং:

এক নারী নিজের অভিজ্ঞতা ভাগ করে নিয়ে বলে, “আমি আমার সঙ্গীকে উত্যক্ত করতে উপভোগ করি বিশেষত যখনই আমরা সেক্স করি। কিন্তু একটা সময়, তাকে কিছু কাজের জন্য অন্য রাজ্যে যেতে হয়েছিল, এদিকে আমি সত্যিই সেই সময় সেক্স করতে চেয়েছিলাম। আমি ভেবেছিলাম সে চলে যাওয়ার পর আমাকে ভাইব্রেটর ব্যবহার করতে হবে, কিন্তু আমি তার পরিবর্তে তার সাথে ফোনে সেক্স করা শুরু করলাম। এই প্রথম আমরা এই কাজ এবং তারপর থেকে আমরা নিয়মিত এই ধরনের কাজ করতাম।”

একটি মোচড় দিয়ে সেক্সটিং

আরেক মহিলা বলেন, “আমার বান্ধবী এবং আমি আমাদের ফ্যান্টাসি পূরণের জন্য ভিন্ন কিছু করার সিদ্ধান্ত নিয়েছি, যাতে আমরা আমাদের যৌন চাহিদা পূরণ করতে পারি। এর জন্য আমরা সেক্সটিং এর সাথে ভিডিও চ্যাট করার চেষ্টা করেছি এবং সত্যই এটি এখন পর্যন্ত সবচেয়ে উষ্ণতম বিষয় হতে দেখা গেছে। তারপরে আমরা স্ক্রিনে একে অপরের কাছে আমাদের ইচ্ছা প্রকাশ করতে শুরু করি এবং এটি আমাদের অনুভূতিগুলিকে আরও খোলামেলাভাবে ভাগ করার অনুমতি দেয়।

আমরা দীর্ঘদিন ধরে ফোন সেক্স করার চেষ্টা করেছি, কিন্তু এটি বিরক্তিকর হতে শুরু করেছে। আমরা দুজনেই আমাদের সেক্সকে আরও আকর্ষণীয় করে তোলার জন্য আমাদের সম্পর্কের মধ্যে সেক্স টয় যোগ করার কথা ভেবেছিলাম, তারপরে যৌনতা আরও ভাল হতে শুরু করে। সেক্সিংয়ের মাঝখানে যৌন খেলনা অন্তর্ভুক্ত করা একটি দুর্দান্ত ধারণা ছিল এবং আমরা উভয়েই সম্পূর্ণ সম্মত হয়েছিলাম।

তথ্যসূত্র: নবভারত টাইমস্

Related posts

২৪ ঘণ্টায় কিছুটা নামল করোনা সংক্রমন ও অ্যাক্টিভ কেসের গ্রাফ, বাড়ল মৃতের সংখ্যা

News Desk

খুশিমনেই বিয়ে হয়েছিল, অথচ দুদিন পরেই স্বামীকে বিষ মেশানো মিষ্টি খাওয়ালো নববধূ! 

News Desk

বেশীরভাগ সময় মোবাইলে দেখতেন আত্মহত্যার ভিডিও! শেষমেষ নিজেই বাছলেন সেই পথ

News Desk