Dainik Sangbad – দৈনিক সংবাদ
Image default
FEATURED ট্রেন্ডিং

অন্যরকম লুক চাই! নিজের চেহারা পরিবর্তনের জন্য মডেল যা করলেন শুনলে চমকে উঠবেন

আপনি যদি বুঝতে চান ইনস্টাগ্রাম বা এই জাতীয় অন্যান্য জনপ্রিয় সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্মে ফিল্টারের আসক্তি কীভাবে কাউকে প্রভাবিত করতে পারে, তবে ইউক্রেনের এই জনপ্রিয় মডেলকে দেখা উচিত। ‘সবচেয়ে বড় গাল’ এর অধিকারী মডেলটি নানা ইনস্টাগ্রাম ফিল্টারের প্রতি এতটাই আসক্ত ছিল যে এটি আক্ষরিক অর্থেই তার মুখের চেহারাকে ফিল্টারের মতোই দেখতে বদলে দিয়েছে। এবার এই মডেল আবারও নিজের মুখায়ব নিয়ে এমন কিছু করলেন যা জানলে হতবাক হয়ে যাবেন। মডেল তার মাথায় শিং লাগাচ্ছে।

সবচেয়ে বড় গালের পর এখন মুখে শিং

এই মডেলের নাম আনাস্তাসিয়া পোক্রেশচুক। ইনজেকশনের মাধ্যমে বিশ্বের সবচেয়ে বড় গাল পাওয়া ইউক্রেনের এই মডেল এখন তার মাথায় শিং দেখতে চান। এ জন্য আবারও ইনজেকশন নিচ্ছেন আনাস্তাসিয়া। ইনস্টাগ্রামে এর ভিডিও শেয়ারও করেছেন তিনি। এতে তাকে মনে হচ্ছে তার শিং আছে।

কপালে শিং-এর মতো দাগ

ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে, আনাস্তাসিয়ার প্লাস্টিক সার্জন তার কপালে একটি সিরিঞ্জ লাগাচ্ছেন। ইনজেকশন দেওয়ার পরে, তার ভ্রুর উপরে ছোট ছোট দাগ ছিল। এগুলি শিং বের হওয়ার আগে শুরু হওয়ার মতো। এই ভিডিওটি হাজারের উপর লাইক পেয়েছে।

অনুসারীদের জন্য এই সতর্কবার্তা দেওয়া হয়েছিল

এর সাথে, মডেলটি তার অনুগামীদেরও সতর্ক করেছেন যে তারা যদি পরে তাকে শিং সমেত দেখে তবে যেন হতবাক না হন। ক্যাপশনের পাশাপাশি তিনি ব্যবহারকারীদের কাউকে নিজে থেকে এই কাজ না করার জন্য সতর্কও করেছেন।

‘মুখ নষ্ট করার’ জন্য বিশেষ চিকিৎসা নেয়

আনাস্তাসিয়া লিখেছেন, ‘আজ যদি আমাকে শিং সমেত দেখেন, ভয় পাবেন না, সন্ধ্যা নাগাদ এই ট্রিটমেন্ট শেষ হয়ে যাবে।’ তিনি আরও লিখেছেন, ‘চিকিৎসকদের সহায়তায় কপালে বোটক্স নিচ্ছি। এটা নিজে থেকে করবেন না।’ আনাস্তাসিয়া আরও লিখেছেন, ‘রোমান হলেন বিশ্বের সেরা ডাক্তার, তিনি সবসময় জানেন আমি যখন সমস্যায় পড়ি তখন কী করতে হবে।’

ব্যবহারকারীরা সোশ্যাল মিডিয়ায় পরামর্শ দিচ্ছেন

তার মুখে নতুন বোটক্স এর ভিডিও প্রকাশের পর তার অনুসারীরা আবারও হতবাক। অনেকে তার সমালোচনাও করছেন। একজন ব্যবহারকারী লিখেছেন, ‘আপনার গালের পর শিং দেখলে কেউ অবাক হবেন না।’ অন্য একজন ব্যবহারকারী লিখেছেন আপনার কপালে কি হয়েছে এবং কেন এটা ঠিক করছেন? এটা কি আগে ভুল ছিল?

যাইহোক, ভক্ত বা সোশ্যাল মিডিয়া ব্যবহারকারীরা যাই বলুন না কেন, মনে হচ্ছে প্লাস্টিক সার্জারি, ইনজেকশন এবং প্রসাধনী পরিবর্তনের মাধ্যমে আনাস্তাসিয়া তার চেহারাটি বেশ উপভোগ করছেন।

Related posts

হোয়াটসঅ্যাপে ‘রেড হার্ট’ ইমোজি পাঠালে গুনতে হতে পারে মোটা জরিমানা! খাটতে হতে পারে জেলও

News Desk

সিন্থেটিক ভ্রুণ তৈরি করছে বায়োটেক ফার্ম! ভবিষ্যতে কি কৃত্রিম শিশুর জন্ম হবে? কি বলছেন বিজ্ঞানীরা

News Desk

মা হলেন প্রীতি জিন্টা! গর্ভ ভাড়া নিয়ে যমজ সন্তানের জন্ম দেন প্রীতি ও স্বামী জেফ

News Desk