Dainik Sangbad – দৈনিক সংবাদ
Image default
FEATURED ট্রেন্ডিং

ভারতের বিপক্ষে কেন হারতে হলো পাকিস্তানকে? ম্যাচের পর বিস্ফোরক বাবর আজম

গত টি ২০ ওয়ার্ল্ড কাপের বিষাদ স্মৃতি কাটিয়ে আবার স্বমহিমায় টিম ইন্ডিয়া। এশিয়া কাপ ২০২২-এর প্রথম ম্যাচেই, টিম ইন্ডিয়া একটি জয় দিয়ে শুরু করলো এবং প্রথম ম্যাচেই পাকিস্তানকে পরাজিত করেছে। এই ম্যাচে ভারতীয় দল ৫ উইকেটে জিতেছে। এই পরাজয়ের পর পাকিস্তানের অধিনায়ক বাবর আজম জানালেন দলের দুর্বলতার কথা। তিনি জানালেন কোন কারণে পাকিস্তান হেরেছে?

ম্যাচ পরবর্তী সাংবাদিক সম্মেলনে বাবর আজম বলেন, ব্যাটিংয়ে আমাদের খেলোয়াড়রা বড় জুটি গড়তে পারেনি। একটা জুটি হলে ম্যাচের ফল অন্যরকম হতে পারত। বাবর জানান, তার দল ১০-১৫ রান কম করেছে। তবে অধিনায়ক বাবর তার বোলারদের নিয়ে সন্তুষ্ট।

‘৫০ রানের জুটি হওয়া উচিত ছিল’

বাবর বলেন, ‘আমরা শেষ ওভার পর্যন্ত ম্যাচটা নিয়ে যেতে চেয়েছিলাম। শেষ ওভারে নওয়াজ ভালো করলেও ফলাফল আমাদের পক্ষে ছিল না। ব্যাটিংয়ে আমাদের ভালো জুটি গড়ে উঠেনি। অন্তত একটা ৫০ রানের পার্টনারশিপ হওয়া উচিত ছিল। আমরা খুবই কম রান করেছি।

‘হার্দিক পান্ডিয়া একজন দুর্দান্ত অলরাউন্ডার’

টস ও হার্দিক পান্ডিয়ার পারফরম্যান্স প্রসঙ্গে বাবর বলেন, ‘আমরা যদি ম্যাচে টস জিততাম, তাহলে আমরা আগে বল করতাম, কিন্তু এটা কোনো অজুহাত নয়। যদিও টসে তেমন কিছু আসে যায় না। আপনার প্রচেষ্টা বেশী গুরুত্বপূর্ণ। কখনও কখনও ম্যাচগুলি ১২০ রান করে সেই স্কোরেও জিতে যাওয়া যায় এবং কখনও কখনও ১৫০ স্কোর করলেও হেরে যেতে হয়। হার্দিক পান্ডিয়া একজন দুর্দান্ত অলরাউন্ডার। বোলিং এবং তারপর ব্যাটিংয়েও তিনি দারুন ভাবে খেলেছেন। ব্যাটিংয় করে দারুন ভাবে ম্যাচ শেষ করেন তিনি।

এভাবেই পাকিস্তানকে হারিয়ে দিল ভারতীয় দল

ম্যাচে টস হেরে প্রথমে ব্যাট করতে নামে পাকিস্তান দল। দ্রুত প্যাভিলিয়নে ফেরেন ক্যাপ্টেন বাবর। এর পর ভারতীয় বোলাররা ধ্বংসযজ্ঞ শুরু করে, তা আর সামলাতে পারেনি পাকিস্তান দল। উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান মোহাম্মদ রিজওয়ান ভালো ইনিংস খেলে ৪৩ রান করেন। এর ভিত্তিতে ১৪৭ রানে গুটিয়ে যায় পাকিস্তান দল। ফাস্ট বোলার ভুবনেশ্বর কুমার নেন ৪টি, হার্দিক পান্ডিয়া ৩টি এবং আরশদীপ সিং ২টি উইকেট নেন। আভেশ খান একটি ব্রেকথ্রু পেয়েছেন।

১৪৮ রানের লক্ষ্য তাড়া করতে গিয়ে এই ম্যাচ টিম ইন্ডিয়ার জন্য এতটা সহজ ছিল না, কারণ ভারতের টপ অর্ডার শুরুতে ব্যর্থ হয়েছিল। সহ-অধিনায়ক কেএল রাহুল প্রথম বলে আউট হন, অধিনায়ক রোহিত শর্মা মাত্র ১০ রান করতে পারেন। ৩৫ রান করে আউট হন বিরাট কোহলি। ভারতের প্রথম ৩ উইকেট পড়ে যায় মাত্র ৫৩ রানে।

কিন্তু এখানে রবীন্দ্র জাদেজা এবং হার্দিক পান্ড্য একটি বড় জুটি গড়েন এবং টিম ইন্ডিয়াকে জয়ের পথে ফিরিয়ে আনেন। জাদেজা ৩৫ ও পান্ডিয়া ৩৩ রানের অপরাজিত ইনিংস খেলেন। ম্যাচের সেরা নির্বাচিত হন পান্ডিয়া। শেষ পর্যন্ত ছক্কা মেরে ম্যাচ জিতে নেন হার্দিক পান্ডিয়া।

Related posts

জাতীয় স্তরে সোনার মেডেল জেতা পেটের টানে তিলে তিলে শেষ হচ্ছে আরও এক প্রতিভা

News Desk

ফের রাজ্যে বাড়লো করোনা সংক্রমণ, বুধবার মুখ্যমন্ত্রীর জরুরি বৈঠকের ডাক

News Desk

অপর্ণা ফিরে চলো’, স্ত্রী, পুত্রকে ফেরাতে শ্বশুরবাড়ির বাইরেই ব্যানার নিয়ে ধর্নায় স্বামী

News Desk